Sat. Dec 14th, 2019

ঝিনাইদহ নিউজ

সবার আগে সর্বশেষ

কার কার ভাগ্যে অস্কার?

1 min read
কার কার ভাগ্যে অস্কার?

কার কার ভাগ্যে অস্কার?

কার কার ভাগ্যে অস্কার?
কার কার ভাগ্যে অস্কার?

বিনোদন অঙ্গনের প্রতি বিদ্রুপ নাকি এক বালকের বেড়ে ওঠার গল্প- কে জিতবে সেরা ছবির অস্কার? বিদ্রুপাত্মক ছবি ‘বার্ডম্যান’ আর শৈশব থেকে এক বালকের তারুণ্যে পা রাখার চিত্র ‘বয়হুড’কে অন্যতম ফেভারিট ভাবা হচ্ছে এবারের অস্কারে সেরা চলচ্চিত্র বিভাগে। জিততে পারে যে কোনোটি। ২২ ফেব্রুয়ারি (বাংলাদেশ সময় ২৩ ফেব্রুয়ারি সকাল সাড়ে ৬টা) ৮৭তম অস্কার অনুষ্ঠানে কার ভাগ্যে জুটবে সেরা ছবির পুরস্কার, তা নিয়ে জল্পনা এখন তুঙ্গে।
সব মিলিয়ে এবারের অস্কারে নিরঙ্কুশ ফেভারিট কেউ নয়। কার মুখে থাকবে শেষ হাসি, আগে থেকে তা অনুমান করার সাহস করছেন না কেউ। তাই অস্কারের ৮৭তম আসরকে ঘিরে রয়েছে বাড়তি কৌতূহল। ‘বয়হুড’ ও ‘বার্ডম্যান’ ফেভারিট হলেও হিসাব পাল্টে দিতে পারে সেরা চলচ্চিত্র বিভাগে মনোনীত অন্য ছয়টি ছবি। এগুলো হলো- ‘আমেরিকান স্নাইপার’, ‘দ্য গ্র্যান্ড বুদাপেস্ট হোটেল’, ‘দ্য ইমিটেশন গেম’, ‘সেলমা’, ‘দ্য থিওরি অব এভরিথিং’ এবং ‘হুইপ্ল্যাশ’।
এবার সর্বাধিক ৯টি করে মনোনয়ন পেয়েছে ‘বার্ডম্যান’ এবং ‘দ্য গ্র্যান্ড বুদাপেস্ট হোটেল’। ‘দ্য ইমিটেশন গেম’ আটটি বিভাগে, ‘আমেরিকান স্নাইপার’ ও ‘বয়হুড’ ছয়টি করে আর পাঁচটি করে মনোনয়ন পেয়েছে ‘ফক্সক্যাচার’, ‘ইন্টারস্টেলার’, ‘দ্য থিওরি অব এভরিথিং’ এবং ‘হুইপ্ল্যাশ’।
অস্কারের একদিন আগে ‘বার্ডম্যান’ ও ‘বয়হুড’ ইন্ডিপেন্ডেন্ট স্পিরিট অ্যাওয়ার্ডস জেতায় হাড্ডহাড্ডি লড়াইটা আরও জমে উঠেছে। ২ কোটি ডলার কিংবা তারও কম খরচে বানানো ছবিগুলোর মধ্য থেকে সেরাদের পুরস্কার দেওয়া হয়ে থাকে ইন্ডিপেন্ডেন্ট স্পিরিট অ্যাওয়ার্ডসে।
‘বয়হুড’ ছবির দৃশ্যধারণ শেষের জন্য পরিচালক রিচার্ড লিঙ্কলেটার অপেক্ষা করেছেন এক যুগ। এতে বালক চরিত্রে রূপদানকারী অভিনয়শিল্পীর তারুণ্যে পৌঁছা পর্যন্ত ক্যামেরায় তুলে ধরার জন্য এতোটা সময় ব্যয় করেছেন তিনি। এ ধৈয্যের ফলস্বরূপ গোল্ডেন গ্লোব ও বাফটার পর স্পিরিট অ্যাওয়ার্ডসের ৩০তম আসরে সেরা পরিচালকের পুরস্কার পেলেন লিঙ্কলেটার।

তবে ডিরেক্টরস গিল্ড অব আমেরিকা (ডিজিএ) অ্যাওয়ার্ডসে ‘বার্ডম্যান’ ছবির জন্য সেরা পরিচালক হয়েছেন আলেহান্ড্রো গঞ্জালেজ ইনারিতু। তার ছবিটি স্পিরিট অ্যাওয়ার্ডসে সেরা পূর্ণদৈর্ঘ্য কাহিনীচিত্র হয়েছে। ফলে অস্কারে সেরা পরিচালকের পুরস্কারের জন্য লিঙ্কলেটার আর ইনারিতুই পাঞ্জা লড়ছেন। তবে ওয়েস অ্যান্ডারসনও (দ্য গ্র্যান্ড বুদাপেস্ট হোটেল) বাজিমাত করে দিতে পারেন। এ ছাড়া মনোনীত অন্য দুই পরিচালক হলেন বেনেট মিলার (ফক্সক্যাচার) এবং মর্টেন টিলডাম (দ্য ইমিটেশন গেম)।
অস্কারে সেরা অভিনেত্রীর পুরস্কারটা জুলিয়ান মুর পাচ্ছেন, এটা মোটামুটি অবধারিত! ‘স্টিল অ্যালিস’ ছবিতে আলজেইমার রোগে আক্রান্ত অধ্যাপিকার ভূমিকায় অনবদ্য অভিনয়ের জন্য এরই মধ্যে গোল্ডেন গ্লোব, বাফটা, স্ক্রিন অ্যাক্টরস গিল্ড (এসএজি) অ্যাওয়ার্ডস, ক্রিটিকস চয়েস অ্যাওয়ার্ডসের পর স্পিরিট অ্যাওয়ার্ডসও জিতেছেন। তাই সেরা অভিনেত্রী মনোনীত ম্যারিয়ন কতিলার (টু ডেজ, ওয়ান নাইট), ফেলিসিটি জোন্স (দ্য থিওরি অব এভরিথিং), রিস উইদারস্পুন (ওয়াইল্ড) এবং রোসামুন্ড পাইকি (গন গার্ল) ধোপে টিকবেন না এটা নিশ্চিত।
তবে সেরা অভিনেতার পুরস্কার নিয়ে জমাট লড়াই হচ্ছে মাইকেল কিটন ও এডি রেডমেইনের মধ্যে। দু’জনই গোল্ডেন গ্লোব জিতেছেন। এ ছাড়া ‘বার্ডম্যান’ ছবিতে একসময় সুপারহিরো চরিত্রে অভিনয় করা তারকার ভূমিকায় কাজের জন্য কিটন ক্রিটিকস চয়েস অ্যাওয়ার্ডস ও স্পিরিট অ্যাওয়ার্ডস পেয়েছেন। ‘দ্য থিওরি অব এভরিথিং’-এ বিজ্ঞানী স্টিফেন হকিং চরিত্রে দুর্দান্ত অভিনয়ের সুবাদে রেডমেইন আরও জিতেছেন বাফটা আর এসএজি। তাই সেরা অভিনেতার বিভাগে জিইয়ে থাকবে রুদ্ধশ্বাস উত্তেজনা। এ বিভাগে ব্র্যাডলি কুপার (আমেরিকান স্নাইপার) অস্কারে মনোনয়নের হ্যাটট্রিক করেছেন, শুন্য হাতে ফেরার হ্যাটট্রিকও করতে হতে পারে কিটন ও রেডমেইনের দৌরাত্ম্যে। এ ছাড়া স্টিভ ক্যারেল (ফক্সক্যাচার) ও বেনেডিক্ট কাম্বারব্যাচের (দ্য ইমিটেশন গেম) জন্যও হতাশাই অপেক্ষা করছে সম্ভবত।
সেরা সহ-অভিনেত্রী বিভাগেও প্যাট্রিসিয়া আর্কেটের অস্কারজয়ের পক্ষে বাজি ধরতে পারেন যে কেউ। ‘বয়হুড’ ছবিতে মায়ের ভূমিকায় অনবদ্য অভিনয়ের সুবাদে গোল্ডেন গ্লোব, বাফটা, স্ক্রিন অ্যাক্টরস গিল্ড (এসএজি) অ্যাওয়ার্ডস, ক্রিটিকস চয়েস অ্যাওয়ার্ডসের পর স্পিরিট অ্যাওয়ার্ডসও জিতেছেন তিনি। এ কারণে সম্ভবত চতুর্থবারের মতো অস্কাজয়ের রেকর্ড গড়া হচ্ছে না মেরিল স্ট্রিপের। যদিও ১৯বারের মতো মনোনয়ন পেয়ে ঠিকই রেকর্ড গড়েছেন তিনি। অস্কারের সহ-অভিনেত্রী বিভাগে মনোনীত অন্য তিনজন হলেন- কিরা নাইটলি (দ্য ইমিটেশন গেম), এমা স্টোন (বার্ডম্যান) এবং লরা ডার্ন (ওয়াইল্ড)।
সেরা সহ-অভিনেত্রী বিভাগেও জেকে সিমন্সের পুরস্কারজয়টা মোটামুটি নিশ্চিত! ‘হুইপ্ল্যাশ’ ছবিতে জাঁদরেল জ্যাজসংগীত শিক্ষকের ভূমিকায় দুর্দান্ত অভিনয়ের জন্য তিনিও গোল্ডেন গ্লোব, বাফটা, স্ক্রিন অ্যাক্টরস গিল্ড (এসএজি) অ্যাওয়ার্ডস, ক্রিটিকস চয়েস অ্যাওয়ার্ডসের পর স্পিরিট অ্যাওয়ার্ডসও জিতেছেন। এই বিভাগে মনোনীত অন্য চারজন হলেন- রবার্ট ডুভাল (দ্য জাজ), ইথান হাউক (বয়হুড), এডওয়ার্ড নর্টন (বার্ডম্যান) এবং মার্ক রাফালো (ফক্সক্যাচার)।
বাফটার পর স্পিরিট অ্যাওয়ার্ডসেও সেরা বিদেশি ভাষার ছবি হয়েছে পোল্যান্ডের ‘আইডা’। তবে গোল্ডেন গ্লোব জিতে রাশিয়ার ‘লেভিয়াফান’ও এগিয়ে আছে। এ ছাড়া ফরাসি অস্কার সিজার অ্যাওয়ার্ডস জেতা মরিটানিয়ার ‘টিমবুকটু’, এস্টোনিয়ার ‘ট্যাঙ্গারিন্স’ এবং আর্জেন্টিনার ‘ওয়াইল্ড টেলস’ও জিততে পারে পুরস্কার।
কে হতে যাচ্ছে বিজয়ী? কার কার ভাগ্যে জুটছে অস্কার? উত্তর জানা যাবে আর মাত্র কয়েকঘণ্টা পর।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *